[ খবর ] 11/01/2017
 
সংক্রামক রোগের চিকিৎসা
সংক্রামক রোগ নারী ও পুরুষের প্রজনন অঙ্গে আক্রমণ করতে পারে। নারী-পুরুষ মেলামেশার সময় যে কোনো একজন যৌন রোগে আক্রান্ত থাকলে অপরজনও এ রোগে আক্রান্ত হতে পারে। এ চিকিৎসায় এমন ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে যিনি এর চিকিৎসা জানেন এবং সমস্যা গোপন রাখবেন। লক্ষণ- পুরুষের অঙ্গ থেকে সাদা বা হলুদ জাতীয় পদার্থ নিঃসরণ হয় এবং প্রস াব করতে গেলে তারা ব্যথা পান। অনেকেই জানেন না তাদের দেহে এ রোগ আছে, কারণ কোনো লক্ষণ প্রকাশ পায় না। একাধিক সঙ্গীর সঙ্গে মেলামেশা করলে রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি অনেক বেড়ে যায়। কনডমের ব্যবহার যৌন রোগ অনেক ক্ষেত্রে প্রতিরোধ করে। প্রতিবার মেলামেশার পর ব্যবহার্য জায়গা পরিষ্কার করা উচিত। এ রোগে আক্রান্ত হতে পারেন এমন সন্দেহ হলে সিগগির চিকিৎসকের পরামর্শ প্রয়োজন।
চিকিৎসা না করালে- পুরুষ ও মহিলা অঙ্গের ভেতরে জীবাণু প্রবেশ করবে এবং নারীদের জরায়ু টিউব ও ডিম্বকোষ আক্রান্ত হবে। পুরুষের অণ্ডকোষ আক্রমণ করবে। ফলে নারী ও পুরুষ উভয়ই সন্তান জন্মদানে ব্যর্থ হতে পারে বা বন্ধ্যা হয়ে যেতে পারে। বারবার গর্ভের সন্তান নষ্ট হয়ে যেতে পারে বা মৃত বাচ্চা প্রসব করতে পারে। গর্ভবতীর যৌনরোগের চিকিৎসা না হলে বাচ্চাও যৌন রোগ নিয়ে জন্মাতে পারে।
ডা. দিদারুল আহসান
ত্বক ও যৌন ব্যাধি বিশেষজ্ঞ,
আল-রাজী হাসপাতাল, ফার্মগেট, ঢাকা।
মোবাইল- ০১৭১৫৬১৬২০০