[ ] 13/09/2017
 
তৈরি পোশাক, ওষুধ ও কৃষিপণ্য নিতে আগ্রহী জর্জিয়া
ইউরেশিয়ায় অবস্থিত অপেক্ষাকৃত ছোট দেশ জর্জিয়ার সঙ্গে বর্তমানে বাংলাদেশের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য খুবই কম। গত ২০১৬-১৭ অর্থবছরে দেশটিতে বাংলাদেশ রপ্তানি করেছে ১২ লাখ ১০ হাজার ডলারের পণ্য। রপ্তানি উন্নয়ন ব্যুরোর (ইপিবি) হিসাবে আলোচ্য সময়ে আমদানি হয়নি। অবশ্য এর আগের বছর রপ্তানির চাইতে আমদানি বেশি ছিল। তবে এ বাণিজ্য আরো বহু গুণে বাড়ার সম্ভাবনা দেখছেন উভয় দেশের উদ্যোক্তারা। দেশটি বাংলাদেশ থেকে আরো বেশি পরিমাণে তৈরি পোশাক বা গার্মেন্টস পণ্য নিতে আগ্রহী। সেই সঙ্গে ওষুধ ও কৃষিজাত পণ্যের আমদানি বাড়াতে চায় তারা।

গতকাল রাজধানীর মতিঝিলে ফেডারেশন ভবনে এফবিসিসিআই নেতাদের সঙ্গে বৈঠককালে সফররত জর্জিয়ার প্রতিনিধি দল এ আগ্রহের কথা জানান। এ সময় উভয় দেশের মধ্যে বাণিজ্য বাড়াতে একটি সমঝোতা স্মারকও স্বাক্ষর হয়।

সফররত জর্জিয়ার প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডেভিড জালাগানিয়া। তিনি বলেন, উভয় দেশের মধ্যে বাণিজ্যের পরিমাণ খুবই কম, এটি ঠিক। কিন্তু এ বাণিজ্য বাড়িয়ে নতুন উচ্চতায় নেওয়ার সুযোগ রয়েছে। এক্ষেত্র তৈরি পোশাক, ওষুধ ও কৃষিজাত পণ্য আমদানি করা যেতে পারে। এছাড়া সেখানে যৌথ উদ্যোগে বিনিয়োগেরও আহ্বান জানান তিনি।

এফবিসিসিআই সভাপতি সফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন দেশটিকে বাংলাদেশ থেকে আরো বেশি পরিমাণে পণ্য আমদানির আহ্বান জানান। সেই সঙ্গে এদেশে একক বা যৌথ উদ্যোগে বিনিয়োগের আহ্বান জানান। স্বাক্ষরিত সমঝোতা স্মারক অনুযায়ী, উভয় দেশের ব্যবসায়ীরা শিল্প ও বাণিজ্য বৃদ্ধিতে তথ্য বিনিময় করবে।