[ ] 14/12/2017
 
চীনে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা গবেষণা কেন্দ্র চালু করছে গুগল
অ্যালফাবেট নিয়ন্ত্রিত গুগল চীনে কৃত্রিম বৃদ্ধিমত্তা (এআই) গবেষণা কেন্দ্র চালু করতে যাচ্ছে। স্থানীয় মেধাবীদের এআই নিয়ে কাজের সুযোগ সৃষ্টি করতে এ গবেষণা কেন্দ্রটি চালুর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। গতকাল গুগলের পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়। খবর রয়টার্স।

বিবৃতিতে গুগল জানায়, চীনের এআই গবেষণা কেন্দ্রটি এশিয়ায় প্রথম। এটি ছোট একটি টিম নিয়ে পরিচালিত হবে ও এর কার্যক্রম পরিচালিত হবে বেইজিং থেকে।

চীনের নীতিনির্ধারকরা স্থানীয়ভাবে এআই গবেষণা ও উন্নয়নের ওপর জোর দিচ্ছেন। তবে দেশটি আগে বিদেশী প্রতিষ্ঠানগুলোর কার্যক্রমের ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছিল। এ কারণে বিদেশী প্রতিষ্ঠানগুলোর পক্ষে চীনে কার্যক্রম সম্প্রসারণের সুযোগ ছিল না। তবে বর্তমান প্রেক্ষাপট কিছুটা পাল্টে গেছে। চীন এখন বিদ্যমান অবস্থা পরিবর্তনের ইঙ্গিত দিচ্ছে।

চীনে গুগলের অনুসন্ধান সেবা বন্ধ রয়েছে। দেশটিতে প্রতিষ্ঠানটির ই-মেইল ও ক্লাউড স্টোরেজ সেবাও বন্ধ রয়েছে। এ কারণে প্রতিষ্ঠানটি চীনে এআই নিয়ে কার্যক্রম জোরদারের চেষ্টা করছে। গুগল ছাড়াও দেশটিতে বেশ কয়েকটি বিদেশী প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।

চলতি বছর গুগল চীনের পূর্বাঞ্চলে কর্তৃপক্ষের সহযোগিতায় গো টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছিল। এ টুর্নামেন্ট বিদেশী গণমাধ্যমে বেশ সাড়া ফেললেও, চীনের স্থানীয় গণমাধ্যম এ ব্যাপারে নীরব ছিল।

চলতি মাসের শুরুতে গুগলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) সুন্দর পিচাই চীনের শীর্ষ সাইবার নিয়ন্ত্রক সংস্থা সাইবারস্পেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন অব চায়নার আয়োজনে একটি সম্মেলনে অংশ নিয়েছিলেন। এতে তিনি চীনের বাজারে সম্ভাব্য এআইয়ের প্রবেশ নিয়ে কোনো কথা বলেননি।

গুগল জানায়, এর আগে নিউইয়র্ক, টরন্টো, লন্ডন ও জুরিখে এআই গবেষণা কেন্দ্র চালু করা হয়েছে। এর সঙ্গে যুক্ত হবে চীনের গবেষণা কেন্দ্রটি।